আজ, মঙ্গলবার | ২৮শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | দুপুর ১২:৫০

ব্রেকিং নিউজ :
শালিখা-মহম্মদপুরে অ্যাড শ্যামল-অ্যাড মান্নান উপজেলা চেয়ারম্যান নির্বাচিত শ্রীপুরের বরিশাটে সংগ্রাম ও কাজী তারেক পক্ষীয়দের মধ্যে দিনভর সংঘর্ষ মাগুরার বড়খড়ি গ্রামে কৃষককে কুপিয়ে হত্যা! দ্বিমুখী প্রতিদ্বন্দ্বিতায় শালিখা মহম্মদপুর উপজেলার নির্বাচন নবীজীকে কটুক্তি: মাগুরার রামচন্দ্রপুর গ্রামে দুটি বাড়িতে আগুন-পুলিশের গুলিতে অর্ধশত আহত মাগুরার এমপি সাকিব আল হাসানের নামে জুয়ার ভূয়া বিজ্ঞাপন মাগুরায় ফিলিস্তিন সংহতি সমাবেশ শ্রীপুরে সমাজসেবা কার্যালয়ের অনুদানের অর্থ বিতরণ মাগুরার শ্রীপুরে দুটি আগ্নেয়াস্ত্রসহ দু’জন আটক সাংবাদিক লক্ষণ চন্দ্র মন্ডলের অন্তেস্টিক্রিয়া সম্পন্ন

মাগুরার শালিখায় বিএম কলেজ অধ্যক্ষ প্রদীপ বিশ্বাসের দূর্নীতির প্রতিবাদে মানববন্ধন সমাবেশ

মাগুরা প্রতিদিন ডটকম : মাগুরার শালিখা উপজেলার ‘শালিখা আইডিয়াল টেকনিক্যাল এন্ড বিএম কলেজের’ অধ্যক্ষ প্রদীপ কুমার বিশ্বাসের বিরুদ্ধে ভূয়া নিয়োগ বাণিজ্য এবং অবৈধ এমপিওভূক্তির অভিযোগে শনিবার এলাকাবাসী মানববন্ধন করেছে।

সকালে উপজেলার বাউলিয়া বাজারে মানববন্ধন মানব বন্ধন চলাকালে অভিযোগকারিরা জানান, কলেজটি প্রতিষ্ঠার ১৫ বছর পর স¤প্রতি প্রতিষ্ঠানটি এমপিও ভূক্ত হয়। কিন্তু বাংলা বিভাগের প্রভাষক সুকান্ত মজুমদারকে বাদ দিয়ে অধ্যক্ষ প্রদীপ কুমার বিশ্বাস অবৈধভাবে নতুন করে বর্ণালী শিকদার নামে অপর একজনের নাম এমপিও ভুক্তির জন্য আবেদন পাঠিয়েছেন।

বক্তারা আরো বলেন, প্রতিষ্ঠাকালীন সময় থেকে সুকান্ত মজুমদার যথাযথ নিয়োগ প্রক্রিয়ার মাধ্যমে বাংলার প্রভাষক পদে নিয়মিত পাঠদান করে আসছেন। কিন্তু স¤প্রতি তার পরিবর্তে ভূয়া নিয়োগপত্র তৈরি করে বর্ণালী শিকদার নামে অপর একজনের এমপিওভূক্তির আবেদন ওই প্রতিষ্ঠান থেকে পাঠানো হয়েছে।

মানববন্ধনে অত্র কলেজের ছাত্র, শিক্ষক, অভিভাবকসহ এলাকার বিভিন্ন পর্যায়ের জনপ্রতিনিধি এবং সাধারণ জনগন অংশ নেন।

মানববন্ধনে অংশগ্রহণকারীদের অভিযোগের বিষয়ে ওই কলেজের সভাপতি শালিখা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তানভীর রহমান বলেন, কলেজ অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে একটি অভিযোগ পাওয়া গেছে। প্রাথমিক পদক্ষেপ হিসেবে এ বিষয়ে অধ্যক্ষের কাছে ব্যাখ্যা চাওয়া হয়েছে। অবশ্যই এ বিষয়ে যথাযথ ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এদিকে অভিযোগের বিষয়ে অভিযুক্ত অধ্যক্ষ প্রদীপ কুমার বিশ্বাস বলেন, সুকান্ত মজুমদারকে অত্র প্রতিষ্ঠানে একজন অতিরিক্ত শিক্ষক হিসেবে নিয়োগ দেয়া হয়। কিন্তু তিনি নিয়োগের পরপরই প্রতিষ্ঠান বিরোধী নানা কর্মকান্ডে জড়িয়ে পড়েন। অন্যদিকে প্রতিষ্ঠান ও এমপিও’র বিধান অনুযায়িই শিক্ষকদের এমপিওর আবেদন পাঠানো হয়েছে।

শেয়ার করুন...




©All rights reserved Magura Protidin. 2018-2022
IT & Technical Support : BS Technology